কোনটি ইংরেজি শব্দ?

ম্যাজেন্টা

পিস্তল

আলমারি

কমা

Description (বিবরণ) :  'ম্যাজেন্টা' (Magenta ) শব্দটি ইতালীয়, যার অর্থ টকটকে লাল; (খ) পিস্তল ' পর্তুগিজ শব্দ; (গ)  আলমারি পর্তুগিজ শব্দ ; (ঘ)  'কমা' (Comma ) ইংরেজি শব্দ , যা একটি যতিচিহ্ন।


Related Question

' শূন্যপুরাণ' রচনা করেছেন ---

রামাই পণ্ডিত

শ্রীকর নন্দী

বিজয় গুপ্ত

লোচন দাস

Description (বিবরণ) : 'শূন্যপুরাণ' রামাই পণ্ডিত রচিত বৌদ্ধধর্মীয় তত্ত্বের গ্রন্থ। বাংলা সাহিত্যে ১২০১ থেকে ১৩৫০ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত সময়কে অন্ধকার যুগ বলা হয়। এ অন্ধকার যুগে তেমন কোনো সাহিত্য রচিত হয়নি। তবে রামাই পণ্ডিতের 'শূন্যপুরাণ', হলায়ুধ মিশ্রের 'সেক শুভোদয়া ' এ যুগের উল্লেখযোগ্য সাহিত্যকর্ম। শ্রীকর নন্দীর রচনা 'ভারত পাঁচলী'। বিজয় গুপ্ত মনসামঙ্গলের প্রাচীনতম কবি। বাংলায় চৈতন্যদেবের দ্বিতীয় জীবনীগ্রন্থের নাম 'চৈতন্য মঙ্গল' যা লোচন দাসের রচনা। 

কোন শব্দ গঠনে বাংলা উপসর্গ ব্যবহৃত হয়েছে?

পরাকাষ্ঠা

অভিব্যক্তি

পরিশ্রান্ত

অনাবৃষ্টি

Description (বিবরণ) : বাংলা ব্যাকরণে খাঁটি বাংলা উপসর্গ একুশটি । এগুলো হলো -অ, অঘা, অজ, অনা, আ, আড়, আন, আব, ইতি, ঊন (ঊনা), কদ, কু,নি,পাতি, বি,ভর, রাম, স,সা, সু ও হা । সংস্কৃত উপসর্গ ২০ টি । এর মধ্যে আ, সু, বি,নি এই চারটি বাংলা ও সংস্কৃত উভয় উপসর্গে আছে। অপশনগুলো বিশ্লেষণ করলে দেখা যায়, ক. পরাকাষ্ঠা- পরা + কাষ্ঠা ; খ. অভিব্যক্তি - অভি + ব্যক্তি ; গ. পরিশ্রান্ত - পরি + শ্রান্ত; ঘ. অনাবৃষ্টি - অনা +বৃষ্টি । ক. ক. গ. অপশরে শব্দ তিনিটি সংস্কৃত উপসর্গ দ্বারা গঠিত। কিন্তু ঘ. অপশনে প্রদত্ত 'অনাবৃষ্টি' শব্দটি বাংলা 'অনা' উপসর্গযোগে গঠিত। সুতরাং সঠিক উত্তর ঘ. ।

' পালামৌ' ভ্রমণকাহিনীটি কার রচনা?

শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়

সুনীল গঙ্গোপাধ্যায়

সঞ্জীবচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়

তারাশঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়

Description (বিবরণ) : 'পালামৌ ভ্রমণকাহিনীর রচয়িতা কথাশিল্পী সঞ্জীবচন্দ্র চট্রোপাধ্যায় (১৮৩৪-১৮১৯) । তিনি বঙ্গিমচন্দ্র চট্রোপাধ্যায়ের মধ্যমাগ্রজ। বঙ্গদর্শন প্রকাশিত 'পালামৌ' সঞ্জীবচন্দ্রের শ্রেষ্ঠ রচনা। শরৎচন্দ্র চট্রোপাধ্যায় (১৮৭৬-১৯৩৮) -এর উপন্যাস শ্রীকান্ত , চরিত্রহীন (১৯১৭) ,দেবদাস (১৯১৭) , পল্লীসমাজ (১৯১৬) , পথের দাবী (১৯২৬) ইত্যাদি। সুনীল গঙ্গেপাধ্যায়  (১৭৯৮-১৯৭১)-এর বিখ্যাত উপন্যাস 'হাঁসুলী বাঁকের উপকথা' (১৯৪৭) ।

' আলোছায়া' পদটি কোন সমাসের অন্তর্গত?

দ্বন্দ্ব সমাস

অব্যয়ীভাব সমাস

তৎপুরুষ সমাস

কর্মধারয় সমাস

Description (বিবরণ) : যে সমাসে দুই বা বহুপদ মিলে একপদ এবং প্রত্যেক পদের অর্থ প্রধানরুপে প্রতীয়মান হয়, তাকে দ্বন্দ্ব সমাস বলে। যেমন - জায়া ও পতি = দম্পতি । আলো ও ছায়া = আলোছায়া , হাট ও বাজার = হাট -বাজার ইত্যাদি। 

কোনটি সাধিত শব্দ নয়?

পানসা

ফুলেল

গোলাপ

হাতল

Description (বিবরণ) : গঠনগত দিক থেকে বাংলা শব্দাবলী দুভাগে বিভক্ত মৌলিক ও সাধিত। যে শব্দকে আর কোনোভাবে বিশ্লেষণ করা যায় না, তাকে মৌলিক শব্দ বলে। যেমন - মা, লাল, তিন হাত, পা গোলাপ ইত্যাদি । যেসব শব্দকে বিশ্লেষণ করা হলে আলাদা অর্থবোধক শব্দ পাওয়া যায়, তাই সাধিত শব্দ যেমন - দয়ালু, পানসা, ফুলেল, হাতল, জমিদার ইত্যাদি। 

' দিবারাত্রির কাব্য' কার লেখা উপন্যাস?

তারাশঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়

শ্রীকুমার বন্দ্যোপাধ্যায়

ঈশানচন্দ্র বন্দ্যোপাধ্যায়

মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়

Description (বিবরণ) : 'দিবারাত্রির কাব্য' (১৯৩৫) মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়ের লেখা উপন্যাস। তার রচিত অন্যান্য উপন্যাস হলো -জননী (১৯৩৫) মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়ের  লেখা উপন্যাস। তার রচিত অন্যান্য উপন্যাস হলো - জননী (১৯৩৫) , পদ্মানদীর মাঝি (১৯৩৬), পুতুলনাচের ইতকথা (১৯৩৬)  ইত্যাদি।